অনলাইনে টিকিট বিক্রিতে ট্রেনে ঈদযাত্রা স্বস্তির হয়েছে

ঈদে রেলের আয় ৬ কোটি ৭১ লাখ টাকা

বাংলাদেশ

এবারের ঈদুল ফিতর উপলক্ষে ট্রেনে যাতায়াত স্বস্তিদায়ক হওয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন রেলপথমন্ত্রী মো. নূরুল ইসলাম সুজন। শতভাগ অনলাইনে বিক্রির ফলে টিকিট কিনতে ভোগান্তি কম হওয়ায় এবং শিডিউল বিঘ্ন না ঘটায় এটি সম্ভব হয়েছে বলে মনে করেন তিনি।রোববার রেল ভবনে ঈদ-পরবর্তী রেল ব্যবস্থাপনাসংক্রান্ত মূল্যায়ন সভায় সভাপতি হিসেবে বক্তৃায় রেলমন্ত্রী এ সন্তোষ প্রকাশ করেন।

মন্ত্রী বলেন, দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, পাশাপাশি রেলব্যবস্থাও এগিয়ে যাচ্ছে। রেলব্যবস্থাকে দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনার অংশ হিসেবে ধীরে ধীরে উন্নত বিশ্বের মতো পর্যায়ে নিয়ে যেতে হবে। রেলওয়ের কয়েকটি মেগা প্রকল্প এ বছরই উদ্বোধন করা হবে। রেলওয়ের সার্বিক উন্নয়নের পাশাপাশি ট্রেন পরিচালনায় পরিবর্তন আনা হচ্ছে। নতুন নতুন ইঞ্জিন ও কোচ সংযুক্ত হচ্ছে এবং নতুন ডাবল লাইন করা হচ্ছে। যাত্রী সেবা বাড়াতে নানা ধরনের পরিকল্পনা নেয়া হচ্ছে।

আলোচনায় অংশ নেয়া সবাই এবারের টিকিট বিক্রির পদ্ধতিকে স্বাগত জানান এবং আগামী ঈদগুলোতেও একইভাবে শতভাগ অনলাইনে বিক্রির প্রস্তাব করেন।

আলোচনায় উল্লেখ করা হয়, ঈদুল ফিতর উপলক্ষে ৭ থেকে ১১ এপ্রিল পর্যন্ত আন্তনগর ট্রেনের শতভাগ অগ্রিম টিকিট অনলাইনে বিক্রি করা হয়েছে। ফলে যাত্রীরা কোনো ভোগান্তি ছাড়াই ঘরে বসে অনলাইনে টিকিট কাটতে পেরেছেন। স্বচ্ছতা নিশ্চিত করার জন্য টিকিট বিক্রির কপিগলো স্টেশনে সরবরাহ এবং ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়েছে। বিভিন্ন স্টেশনে অস্থায়ী বাঁশের বেড়া দিয়ে যাত্রী প্রবেশ বন্ধ করায় টিকিট ছাড়া কেউ ট্রেনে ওঠার সুযোগ পায়নি। পাশাপাশি ঈদযাত্রায় তেমন কোনো শিডিউল বিপর্যয় না ঘটায় এবারের ঈদযাত্রা যাত্রীদের কাছে বিগত কয়েক বছরের মধ্যে সবচেয়ে আরামদায়ক ও নিরাপদ ছিল। শোভন চেয়ারের যাত্রীরাও তাদের সিটে যেতে কোনো ভোগান্তিতে পড়েননি। মাঝখানে দাঁড়ানো কোনো লোক ছিল না। ছাদের যাত্রীও নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছে।

Visits: 0

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *