চিকিৎসার জন্য বিদেশ পাঠানো হচ্ছে তাসকিনকে

চিকিৎসার জন্য বিদেশ পাঠানো হচ্ছে তাসকিনকে

খেলাধুলা
২ ম্যাচ টেস্ট সিরিজ খেলতে আগামী ৮ই মে বাংলাদেশে আসবে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দল। মূল সিরিজের আগে চট্টগ্রামের এম এ আজিজ স্টেডিয়ামে ২ দিনের প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে (১১ ও ১২ই মে) সফরকারী লঙ্কানরা। চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ১৫ই মে শুরু হবে প্রথম টেস্ট। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ এই দ্বি-পাক্ষিক লড়াই টাইগারদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ।

বিশেষ করে দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রোটিয়াদের বিপক্ষে বাজেভাবে টেস্ট হারের পর দেশের মাটিতে ঘুরে দাঁড়ানোটা মুমিনুল বাহিনীর জন্য বড় চ্যালেঞ্জ। তবে এমন গুরুত্বপূর্র্ণ সিরিজে ঘরের মাঠে দুই পেসার তাসকিন আহমেদ ও শরিফুল ইসলাম অনিশ্চিত। ইনজুরির কারণে তাদের শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের শুরুতে নাও পাওয়া যেতে পারে। বিশেষ করে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে পাঠানো হচ্ছে তাসকিনকে।

জানা গেছে শেষ পর্যন্ত ইংল্যান্ডেই পাঠানো হবে। তাদের নিয়ে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস সন্দেহ প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, ‘তাসকিন ও শরিফুলকে পাওয়া যাবে কীনা এ নিয়ে সন্দেহ আছে। কারণ, তাসকিনের একটা কাঁধের ইস্যু আছে। আমরা শীঘ্রই তাকে বাইরে পাঠাতে পারি। মানে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব, আমরা এটাকে প্রপারলি এড্রেস করছি।’

অন্যদিকে বিসিবির প্রধান চিকিৎসক দেবাশিষ চৌধুরী অবশ্য আশা ছাড়েননি তাদের লঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে খেলা নিয়ে। তিনি বলেন, ‘তাসকিনকে তো ৩ সপ্তাহের জন্য বিশ্রাম দেয়া হয়েছে। দুই সপ্তাহ হয়ে গেলো প্রায়, আরও এক সপ্তাহ থাকবে বিশ্রামে। এরপর আমরা আস্তে আস্তে রিহ্যাব করাবো। এটা এখনই বলা আসলে একটু তাড়াতাড়ি হয়ে যায়। রিহ্যাব করলে বোঝা যাবে। আর আমাদের একটা প্ল্যান আছে তাকে বাইরে কোথাও কনসাল্টের জন্য পাঠানোর। বিদেশ যাওয়ার বিষয় এগুলো এখনো কনফার্ম না।

আমরা সামনের সপ্তাহ দেখবো, ইংল্যান্ডে পাঠাতে গেলে এপয়নমেন্টের ব্যাপার আছে, ভিসার ব্যাপার আছে। এগুলো আমাদের প্ল্যানে আছে, আমরা সামনের সপ্তাহটা দেখবো ও কেমন রিকভারি করছে। রিকভারি ভালো হলে ফাইন, রিকভারি ভালো না হলে আমরা একটা কনসালটেন্টের কাছে পাঠাবো।’

চট্টগ্রাম থেকে ফিরে সিরিজের দ্বিতীয় টেস্ট ২৩শে মে থেকে মিরপুরের শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে। আশা করা হচ্ছে ফিট হলে দু’জনকে দ্বিতীয় টেস্টে দেখা যেতে পারে। তবে অস্ত্রোপচারের প্রয়োজন হলে হয়তো দু’জনেরই লঙ্কার বিপক্ষে দেশের মাটিতে খেলা হবে না। চোটে পড়ে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের দ্বিতীয় টেস্টের আগেই দেশে ফেরেন পেসার তাসকিন আহমেদ ও শরিফুল ইসলাম।

কাঁধের চোটে পড়ে দেশে ফেরেন তাসকিন, ছোট খাটো কিছু চোট ছিল শরিফুলের। দেশে ফিরে দুজনেই আছেন বিসিবির তত্ত্বাবধানে। শরিফুলকে বিদেশে পাঠাতে হচ্ছে না । কিন্তু তারও শ্রীলঙ্কা সিরিজের আগে পুরোপুরি সেরে ওঠার ব্যাপারে নেই নিশ্চয়তা। তাসকিনকে নিয়ে জালাল ইউনুস বলেন, ‘অলরেডি সে কনভেনশনাল ট্রিটমেন্টে আছে।

কিন্তু এটায় যদি বেশি সময় লাগে, এটার জন্য যদি বিকল্প কোনো চিকিৎসা থাকে সেটার জন্য আমরা ইংল্যান্ডে কথা বলছি। সার্জারি কীনা আমরা বলতে পারছিনা। সার্জারির পর্যায়ে নাই, এটা চিকিৎসকরা ভালো বলতে পারবে। শ্রীলঙ্কা সিরিজে সম্ভাবনা নাই।’

Hits: 0

Leave a Reply

Your email address will not be published.